বাড়িতেই হবে ‘সুপারফুড’ স্পিরুলিনার চাষ

স্পিরুলিনা এক ধরণের সামুদ্রিক শৈবাল যা উষ্ণ পানিতে সহজেই বৃদ্ধি পায়। যেহেতু শৈবাল পরিবেশে বিদ্যমান বিষাক্ত পদার্থগুলিকে শুষে নিতে পারে, এ জন্যে বাংলাদেশে নিরাপদ এবং নিয়ন্ত্রিত পরিস্থিতিতে স্পিরুলিনা চাষ করা খুবই সহজ। অনেকেই কেবল তাজা স্পিরুলিনার স্বাদ এবং টেক্সচার বেশ পছন্দ করেন। যদিও আমাদের দেশে এটি এখনো খুবই জনপ্রিয় না। তবে বহির্বিশ্বে এটি শক্তিদায়ক খাদ্য হিসেবে জনপ্রিয় ‘সুপারফুড’। একবার আপনি স্পিরুলিনার উৎপাদন শুরু করে দিতে পারলে, আপনার স্পিরুলিনা কলোনী নিজে থেকেই বৃদ্ধি পেতে থাকবে। বাংলাদেশে স্পিরুলিনা উত্পাদন বেশ সহজ; কারণ বাংলাদেশের উষ্ণ আবহাওয়া স্পিরুলিনার ক্রমবর্ধমান বৃদ্ধির জনয়ে সহায়ক। স্পিরুলিনা সম্বন্ধে বিস্তারিত জানতে পড়ুন স্পিরুলিনার স্বাস্থ্য উপকারিতা

স্পিরুলিনা চাষের পদ্ধতি

একটি ট্যাঙ্ক সংগ্রহ করুন

বাড়িতে স্পিরুলিনা চাষ করার জন্য জায়গা হিসাবে একটি স্ট্যান্ডার্ড সাইজের অ্যাকোয়ারিয়ামই যথেষ্ট।

ঘরের ভিতরেই হবে স্পিরুলিনার আবাদ

ঘরের ভিতরেই হবে স্পিরুলিনার আবাদ

বাংলাদেশে বড় বড় ট্যাঙ্ক-এ স্পিরুলিনার চাষ করতে পারেন। তবে স্পিরুলিনা কালচার বাড়ির অভ্যন্তরে যেকোনো ছোট ট্যাঙ্কে করা আরও সহজ।

স্পিরুলিনা চাষের সরঞ্জাম সংগ্রহ করুন

পানির মধ্যে স্পিরুলিনার কলোনী বেশ ঘন দেখায়, তবে এর বেশিরভাগ অংশেই পানি। এটি সম্পূর্ণ খেতে বা ব্যবহারের জন্য প্রস্তুত হয়ে গেলে অতিরিক্ত পানি বের করে দিতে হয়। বেশিরভাগ কালচার মিডিয়ামে উৎপাদনের সময় স্বল্প পরিমাণে তাজা স্পিরুলিনা হার্ভেস্ট করতে, একটি সূক্ষ্ম কাপড় বা জাল দিয়ে ছেঁকে ব্যবহার করতে পারেন। তাছাড়াও, স্পিরুলিনাটিকে ট্যাঙ্কের পানি থেকে বের করে আনতে একটি স্কুপের দরকার পড়বে।

আপনি যদি প্রচুর পরিমাণে স্পিরুলিনা সংগ্রহ করে শুকিয়ে ব্যবহার উপযোগী করতে চান, তবে  আপনাকে অনেক সূক্ষ্ম কাপড় বা জাল ব্যবহার করতে হবে।

অ্যালগি বৃদ্ধি করতে প্রয়োজনীয় মিনারেল ক্রয়

আপনি যদি বাসাবাড়িতে ব্যবহার করা পানিতে স্পিরুলিনা চাষের চেষ্টা করেন, আশানুরূপ উৎপাদন নাও করতে পারেন। যেহেতু বাংলাদেশের আবহাওয়া স্পিরুলিনা চাষের জন্য অনুকূল, সেহেতু সঠিকভাবে নির্দিষ্ট খনিজ সঠিক অনুপাতে ব্যবহার নিশ্চিত করতে হবে।

স্পিরুলিনার 'পুষ্টিবর্ধক'

স্পিরুলিনার ‘পুষ্টিবর্ধক’

এজন্যে অবশ্য আপনাকে বিশেষজ্ঞ হতে হবে না, যদিও আপনি বিভিন্ন নার্সারি স্টোরের পাশাপাশি অনলাইনেও খনিজ “বর্ধক” কিনতে পারেন ।

অবশ্যই পুষ্টিবর্ধকে নিচের জিনিসগুলোর উপস্থিতি নিশ্চিত করতে হবেঃ

১) সোডিয়াম বাই কার্বনেট

২) ম্যাগনেসিয়াম সালফেট

৩) পটাসিয়াম নাইট্রেট

৪) সাইট্রিক অ্যাসিড

৫) লবণ

৬) ইউরিয়া

৭) ক্যালসিয়াম ক্লোরাইড

8) আয়রন সালফেট

৯) অ্যামোনিয়াম সালফেট

স্পিরুলিনা কালচার পাত্র কিনুন

আপনি যখনই বাসাবাড়িতে স্পিরুলিনা উৎপাদন করছেন, তখন আপনাকে স্টার্টার হিসাবে কিছুটা জীবিত স্পিরুলিনার ব্যবহারের দরকার পড়বে। সবশেষে স্থানীয় বা কোনো অনলাইন জৈব উপাদন সরবরাহের স্টোরে গিয়ে স্পিরুলিনা স্টার্টার কিট কিনতে পারেন। অবশ্য বাংলাদেশে এখনো সর্বত্র এই কীট সহজলভ্য নয়। কিছু সরকারি-বেসরকারি সংস্থা কিংবা বিদেশী অনলাইন স্টোর থেকে এটি পেতে পারেন।

প্রায় প্রতিটি স্পিরুলিনা স্টার্টার কালচার সাধারণত বোতলের মতোই, যার মধ্যে পানি মিডিয়ামে স্পিরুলিনা শৈবালটি উৎপাদন করা হয়ে থাকে।

যেহেতু স্পিরুলিনা ভারী ধাতু এবং অন্যান্য টক্সিনগুলি শোষণ করতে পারে তাই আপনাকে নিশ্চিত করে নিতে হবে স্টার্টার কীটটি বিশ্বস্ত উৎস থেকে নিচ্ছেন।

স্পিরুলিনার চাষের জন্য আপনার ট্যাঙ্কটি একটি উষ্ণ, আলোজ্জ্বল স্থানে রাখুন

যদি সম্ভব হয় তবে আপনার ট্যাঙ্কটি দক্ষিণমুখী জানালার কাছাকাছি যেখানে প্রচুর রোদ পায় এমন স্থানে রাখুন। স্পিরুলিনার বিকাশের জন্য প্রচুর পরিমাণে আলো এবং উষ্ণতার প্রয়োজন।

অনেকে কৃত্রিম আলো ব্যবহার করেন তবে প্রাকৃতিক আলো দিয়ে ফলাফল আরও ভাল হবে।

কালচার মাধ্যম তৈরি করুন

স্পিরুলিনা উত্পাদন করার আধারকে “মিডিয়াম” হিসাবে উল্লেখ করা হয়, একটি পানিপূর্ণ ট্যাংকে পুষ্টিবর্ধক যুক্ত করে এই বিশেষ শৈবালটিকে বাড়তে দেওয়া হয়। ট্যাঙ্কটিকে ফিল্টার করা পানি দিয়ে পূর্ণ করতে হবে এবং নিয়ম অনুসারে নির্দিষ্ট অনুপাতে খনিজ বর্ধক মিশ্রিত করতে হবে।

ছাদে স্পিরুলিনা ট্যাংক ইনস্টল

ছাদে স্পিরুলিনা ট্যাংক ইনস্টল

একটি ভালমানের ফিল্টার ব্যবহার করলে ট্যাপের পানিই যথেষ্ট এবং এই পানিটিকে আপনার ট্যাঙ্কের জন্য ব্যবহার করতে পারেন।

আপনার বাসার পানি ক্লোরাইডেড হলে অ্যাকোয়ারিয়াম সরঞ্জামাদি পাওয়া যায় এমন দোকান থেকে ডি-ক্লোরিনেট সাপ্লাই কিনে ব্যবহার করতে হবে।

বর্ধক মিডিয়ামের তাপমাত্রা পরীক্ষা করুন

আপনার ট্যাঙ্কের তাপমাত্রা প্রায় ৩৫ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেড (৯৫ ফাঃ) হতে হবে, তবে ৩৮ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেডের (১০০.৪ ফাঃ) এর চেয়ে বেশি উষ্ণ হওয়া যাবে না। তারপরে আপনার ট্যাঙ্কটি আপনার স্পিরুলিনার সঠিক তাপমাত্রা সরবরাহ করছে কিনা নিশ্চিত করার জন্য অ্যাকোয়ারিয়াম একটি বিল্ড-ইন থার্মোমিটার ব্যবহার করুন।

স্পিরুলিনা কম তাপমাত্রা মরণ ছাড়াই সহ্য করতে পারে তবে উষ্ণ পরিবেশে সেরা করবে। যখন আপনার ট্যাঙ্কটি খুব শীতল হয়, অ্যাকোয়ারিয়াম হিটার দিয়ে এটিকে গরম করতে হবে, যা অ্যাকোয়ারিয়াম সরবরাহের দোকানেই পাবেন।

স্পিরুলিনা স্টার্টার যুক্তকরণ

নিশ্চিন্তে উৎপাদনের জন্যে জন্য আপনার স্পিরুলিনা স্টার্টার বোতলে বিদ্যমান সঠিক নির্দেশাবলী অনুসরণ করা উচিত। সাধারণত, ট্যাঙ্কে মিডিয়ামের বোতলটির অর্ধেক থেকে তিন-চতুর্থাংশ ডুবিয়ে রাখতে হয়।

স্পিরুলিনা কলোনী বর্ধমান কাল

প্রথমে আপনার স্পিরুলিনা কলোনিকে পাতলা মনে হবে, তবে সময়ের সাথে সাথে এটি ঘন এবং আকারে প্রসারিত হতে থাকবে। স্পিরুলিনা বাড়তে দেওয়ার জন্যে আপনাকে তেমন কিছুই করার প্রয়োজন হবে না। যদি আপনার স্পিরুলিনা কলোনিটি ভাল বাড়ছে বলে মনে হচ্ছে না, আপনার ট্যাঙ্কের পিএইচ পরীক্ষা করুন, যখন স্পিরুলিনা ব্যবহার উপযোগী হতে হলে এর পিএইচ ১০ এর কাছাকাছি হওয়া উচিত। যখনই পিএইচ এর মান পার্থক্য করতে শুরু করে, তখন আপনার আরও খনিজ “পুষ্টিবর্ধক” যুক্ত করতে হতে পারে।

প্রায় ৩-৬ সপ্তাহ পর থেকে স্পিরুলিনা সংগ্রহ করুন

যখন স্পিরুলিনা ব্যবহার উপযোগী হওয়া শুরু করে, তখন সেবন করার জন্যে সংগ্রহ করা শুরু করুন।

সূক্ষ্ম কাপড়ের মাধ্যমে স্পিরুলিনা ফিল্টার করুন

আপনি যখন আপনার ট্যাঙ্ক থেকে স্পিরুলিনা ব্যবহারের উদ্দেশ্যে সংগ্রহ শুরু করেন, তখন স্পিরুলিনা মিশ্রিত পানি কাপড়ে নিন। এর পরে এটিকে একটি সিঙ্ক বা বাটিতে ধরে রাখুন এবং আলতো করে চাপ দিয়ে অতিরিক্ত পানি বের করুন। সেখান থেকে ঘন সবুজ পেস্টটি আলাদা করে ফেলুন। এর পর এটিকে শুকিয়ে ব্যবহার করুন আপনার প্রিয় খাবারটির সাথে।

স্পিরুলিনা কলোনির পুনঃ পুনঃ উৎপাদন

যখন আপনার ট্যাঙ্ক থেকে ব্যবহারের উদ্দেশ্যে কিছু স্পিরুলিনা বের করেন, সমপরিমানে খানিকটা পুষ্টিবর্ধক মিশ্রণটিতে আবার যুক্ত করে দিন। উদাহরণস্বরূপ, আপনি যদি এক টেবিল চামচ স্পিরুলিনা বের করেন তবে মিডিয়ামে এক টেবিল চামচই পুষ্টিবর্ধক যোগ করুন। এটি আপনার ট্যাংকে স্পিরুলিনার উৎপাদন অব্যাহত রাখবে।

মূল লেখাঃ Cultivation of Spirulina in Bangladesh

Ahmed Imran Halimi
Follow Me

Leave a Reply