পোকামাকড়কে দূরে রাখে যে ৭ টি উদ্ভিদ

এই গরমে সারাদিন খাটনীর পর আপনি যখন ঘুমোনোর প্রস্তুতি নিচ্ছেন, ঠিক তখনই মশাদের অন্তরাত্মা কাঁপানো সুর আপনার মন-মেজাজকে চরমভাবে বিরক্ত করে তুলতে পারে। কিংবা ভনভন করে মাছি বা কোনো পোকা আশেপাশে ওড়াওড়ি করলে চেষ্টা করেও কি একটু শান্তিতে ঘুমোতে পারবেন না। অনেক মশা-মাছি-পোকা দমনে অনেক প্রকার কেমিক্যাল সল্যুশন পাওয়া যায় এখন। বেশিরভাগ কেমিক্যালেই ৫ থেকে ২৫ ভাগের মতো ডিইইটি(ডাই ইথাইল মেটা টল্যুয়ামাইড) থাকে। এর বিষাক্ত প্রভাব বাসার শিশুদের জন্যে অত্যন্ত মারাত্মক। যেসব শিশুরা এসব রাসায়নিক পতঙ্গ বিতাড়ক নিঃশ্বাসের মাধ্যমে গ্রহণ করে থাকে, তাদের শরীরে বিভিন্ন রকম রোগবালাইয়ের প্রকোপ দেখা দেয় যেমন রক্তের নিম্নচাপ, মানসিক সমস্যা, হৃদরোগ ইত্যাদি। তবে কেনো আমরা প্রাকৃতিক উপায়ের শরণাপন্ন হচ্ছি না? এমন কিছু ঘরোয়া উদ্ভিদ রয়েছে, যাদের উপস্থিতি ঘরে এসব পোকা-মাকড়, মশা-মাছিদের উৎপাত থেকে প্রাকৃতিকভাবে রক্ষা করতে পারে কোনো রকম ক্ষতিকর প্রভাব ছাড়াই।  এমন কিছু ঘরোয়া উদ্ভিদ নিয়েই আমাদের আজকের আয়োজন।

পুদিনা

মশা আর মাছি, যেন এই গরমে নিত্যদিনের সঙ্গী। দিনের প্রচন্ড গরম শেষে রাতে চিন্তা করতে হয় মশাদের ভনভন নিয়ে। জানলা-দরজা দিয়ে, কয়েল জ্বালিয়ে, স্প্রে করেও মশা তাড়ানো দূরুহ হয়ে যাচ্ছে। আর মাছিদের তো কথাই নেই, এদের হাত দিয়ে মারাও সম্ভব হয় না।

Mint Plant scaled
পুদিনা গাছ

আপনার বাগানে, ছাদে কিংবা বারান্দায়, সুবিধাজনকস্থানে ছোট্ট পুদিনা গাছ লাগিয়ে ফেলুন। আর ভাবতে হবে না। শক্তিশালী ও তীব্র গোত্রভুক্ত এই উদ্ভিদ প্রাকৃতিকভাবেই আপনার বাড়িকে মশা-মাছিদের তাড়িয়ে রাখতে সহায়তা করবে

ল্যাভেন্ডার

ল্যাভেন্ডারকে আমরা সুশ্রী ও সুগন্ধী ফুলের প্রজাতি হিসেবে অনেকেই ভালোবাসি। শত শত বছর ধরে এটি ব্যবহার হয়ে আসছে আমাদের বাড়ি ও ড্রয়ারকে সুগন্ধযুক্ত করে রাখতে।

ল্যাভেন্ডার
ল্যাভেন্ডার

এর ঘ্রাণ মানুষকে আকৃষ্ট করলেও মশা-মাছি, নীলমাছি, পতঙ্গদের বেশ অপছন্দের। বাগানের আলোযুক্ত স্থানে কিংবা ঘরের প্রবেশদ্বারে ল্যাভেন্ডার লাগিয়ে রাখতে পারেন। পতঙ্গরা আপনার ঘরকে ঘৃণা করতে বাধ্য হবে।

আরও পড়ুনঃ ঔষধি গাছ চাষে যে ১০টি ভুল হয়

ক্যাটমিন্ট

ক্যাটমিন্ট বা বিশেষ ধরণের পুদিনার এই গাছটি সর্বত্র পাওয়া যায়। এটি পুদিনারই গোত্রের অন্তর্ভুক্ত। এটি বাণিজ্যিকভাবে চাষ করা হয়। এই গাছটির যত্ন নেওয়া খুবই সহজ এবং বাগানের যেকোনো স্থানেই এটি বেড়ে ওঠে।

ক্যাটমিন্ট
ক্যাটমিন্ট

এটি বেশ কার্যকরী পতঙ্গ বিতাড়ক উদ্ভিদ। গবেষণায় দেখা গেছে এই উদ্ভিদটি ডিইইটি এর চেয়ে ১০ গুণ বেশি কার্যকরী। এটিকে মূলত মশাদের যম বললেও ভুল হবে না।

গাঁদা

কে না চিনে এই গাঁদা ফুলকে। সেটি একটি ঋতুকালীন ফুলবিশেষ। মূলত সীমানাপ্রাচীর হিসেবে এটিকে শীতকালে সর্বত্র লাগানো হয়। এর বৈশিষ্ট্যময় ঘ্রাণ মশা ও জাবপোকাদের জন্যে ক্ষতিকারক।

IMG 20190115 110713 1
গাঁদা ফুল

গাঁদাফুলের গাছ বেড়ে উঠতে পূর্ণ সূর্যালোক ও উর্বর মাটি দরকার। ছাড়াও টবে চাষ করে রাখতে পারেন আপনার বাড়িতে। বাড়ির দরজা, জানালার সামনে গাঁদা গাছ রেখে দিন, নিশ্চিন্তে মশা ও জাবপোকামুক্ত রাত কাটান।

রোজমেরি

রোজমেরি একধরণের ঔষধি গুণাগুণ সম্পন্ন গাছ। এর ঔষধি গুণ মাছি ও এঁটেল পোকাদের এই গাছ থেকে দূরে রাখতে সহায়তা করে।

রোজমেরি
রোজমেরি

বাগানে বা পটে গাছ চাষ করাও খুব সহজ। এর উপকারি দিক ও সহজ পরিচর্যার কারণে কৃষকরাও জমিতে ফসলের পাশাপাশি রোজমেরির চারা বুনে দেয়।

লেমনগ্রাস

লেমনগ্রাস বা বিশেষ এই ঘাসপ্রজাতি মশা-মাছি, এঁটেল পোকাদের বিতাড়িত করে। Citronella নামক প্রাকৃতিক তেল পাওয়া যায় এই ঘাসে।

লেমনগ্রাস
লেমনগ্রাস

এই অর্নামেন্টার ঘাসটি লম্বায় ৪ ফুট ও চওড়ায় ৩ ফুট হয়ে থাকে। এটি যেকোনো বাগান, পট, টবে ভালভাবে জন্মায় যেখানে সূর্যের আলোর উপস্থিতি উপযুক্ত পর্যায়ে থাকে।

মেন্থল

সুগন্ধ সৃষ্টিতে মেন্থলের জুড়ি নেই। কিন্তু আপনি কি জানেন, এটি একটি প্রাকৃতিক পতঙ্গ বিতাড়ক। এর সুঘ্রাণ মাকড়সা, মশা, পিপড়াসহ অন্যান্য পতঙ্গকে কাছে ঘেষতে দেয় না।

মেন্থল
মেন্থল

খুব স্বল্প পরিচর্যায় আপনার বাড়িতে এটি বেড়ে উঠবে। এটি একই সাথে আপনার ঘরকে সুগন্ধযুক্ত রাখবে ও পোকা-মাকড় থেকে মুক্ত রাখবে।

আরও পড়ুনঃ ক্যান্সার প্রতিরোধী করোসল এর ঔষধি গুণাগুণ

Ahmed Imran Halimi
Follow Me