এরিকা পাম আকশ পাম ইন্ডোর প্ল্যান্টের নাম লেডি পাম নাসার গবেষণা ঘরোয়া উদ্ভিদ সেরা ঘরোয়া উদ্ভিদ, কিভাবে এরিকা পামের যত্ন নিবেন, Greeniculture
নাসার গবেষণায় অন্যতম একটি বায়ু বিশুদ্ধকারী ঘরোয়া উদ্ভিদ এরিকা পাম যা খুব সহজেই ঘরের অভ্যন্তরীন পরিবেশকে ভাল রাখে। একটি সম্পূর্ণ বৃদ্ধিপ্রাপ্ত এরিকা পাম বেশ দামী একটি গাছ, এজন্যে চারা অবস্থায়ই একে স্বল্প দামে কিনে বাড়িতে রেখে যত্ন করা উচিত। এরা প্রতিবছর গড়ে ৬ থেকে ১০ ইঞ্চি করে বাড়ে। একটি পূর্ণবয়স্ক এরিকা পামের উচ্চতা ৬-৭ ফুট পর্যন্ত হয়ে থাকে। এটি প্রায় ১০ বছর পর্যন্ত আপনার ঘরের ভিতরেই খুব সহজেই টিকে থাকতে সক্ষম। সঠিক পরিমাণ আলোর নিশ্চয়তা থাকলে এরিকা পাম খুব সহজেই তিকে থাকবে আপনার বাড়িতে। এরা উজ্জ্বল  কিন্তু সরাসরি সূর্যালোক পড়ে না এমন স্থানে খুব ভালোভাবে বাড়তে পারে। সরাসরি সূর্যালোকে এর পাতা হলুদাভ সবুজ হয়ে যায়।

কিভাবে যত্ন নিবেন

এরিকা পাম গাছ যত্ন নেওয়া খুব একটা কঠিন কোনো বিষয় না। তবে এরা অবহেলা একেবারেই সহ্য করতে পারে না।

.

খুব সহজ এমনভাবে পানি দিবেন যাতে সব সময় মাটি হালকা ভেজা থাকে। গরম ও বসন্তে মাটি যেন হালকা ভেজা থাকে এবং শীতে দুইবার পানি সেচের মাঝে মাটি শুষ্ক থাকতে দিতে হবে। এরিকা সব চেয়ে ভাল হয় সুর্যের আলোর বিপরীতে দক্ষিণ পশ্চিম মুখী জানালার পাশে।
.
প্রতি ৩ মাস অন্তর অন্তর টবে NPK (8-2-12)হারে দিতে হবে। পাশাপাশি ৫ গ্রাম বোরন, ম্যাগনেশিয়াম, আয়রন মিলিয়ে দিতে হবে। সহজে বলা যায় ২ চা চামচ সার একটা পট এর জন্য।
.
গ্রীষ্মে মাইক্রোনিউট্রেন্ট স্প্রে করায় উপকার পাওয়া যায়। মাইক্রোনিউট্রেন্ট সমৃদ্ধ তরলীকৃত সার ব্যবহার করতে পারেন। অবশ্যই সঠিক মাত্রায় ও নিরাপদ হতে হবে। শীতে ও বর্ষায় মাইক্রোনিউট্রেন্ট প্রয়োগ করার দরকার নেই।
.
২-৩ বছর পর পর এরিকা পাম গাছের পাত্র বা টব পরিবর্তন করা উচিত। এরিকা পাম স্বভাবগতভাবেই টাইট কনটেইনার বা পাত্র পছন্দ করে থাকে, এর ঝোপাকৃত শিকড়ব্যবস্থা গাছের আকৃতিও নিয়ন্ত্রণ করে। নতুন পাত্রে উদ্ভিদ স্থানান্তর করার মূল লক্ষ্যই মাটি ও সার পরিবর্তন করা। পটিং সয়েল ও কিছু পরিষ্কার বালু নিয়ে পাত্র ভরাট করে নিতে হবে। পুরনো পাত্রের মতোই সমান গভীরতায় গাছটি রোপণ করতে হবে। বেশি গভীরে রোপণ করার ফলে মূল ক্ষতিগ্রস্থ হতে পারে। মূল ভঙ্গুর প্রকৃতির, তাই মাটিতে রোপণের সময় ছড়িয়ে দেওয়ার বৃথা চেষ্টা করা উচিত নয়। মূলের চারিপাশ মাটি দিয়ে ভরাট করার পর সতর্কতার সাথে চাপা দিতে হবে যেন গাছটি সঠিকভাবে বসে যায়। এর পর পরই পানি সেচ দিতে হবে যেন কোনো বায়ুথলির উদ্ভব হলেও তা যেন ভরাট হয়ে যায়।
এরিকা পাম আকশ পাম ইন্ডোর প্ল্যান্টের নাম লেডি পাম নাসার গবেষণা ঘরোয়া উদ্ভিদ সেরা ঘরোয়া উদ্ভিদ, কিভাবে এরিকা পামের যত্ন নিবেন, Greeniculture
এরিকা পাম

কেন এই গাছ লাগাবেন

এটি ঘরের অভ্যন্তরের বিভিন্ন বিষাক্ত গ্যাস ও দূষিত পদার্থকে অপসারণ করে, বাতাসকে করে পরিশুদ্ধ, আপনাকে রক্ষা করবে অ্যাজমা ও এলার্জি থেকে
রুম তাপমাত্রা ১৬-২৬ ডিগ্রি সেলসিয়াসে এটি টিকে থাকতে পারে।

কিভাবে গাছের যত্ন নিবেন?

ঘরের ভিতরে গাছগুলো প্রতি ১৫ দিন দিন পর পর সাবান পানি দিয়ে মুছে দিতে হবে। এতে গাছ মিলিবাগ, স্পাইডার মাইট এর আক্রমণ হতে রক্ষা পাবে এবং গাছটি দেখতেও সুন্দর লাগবে।
সাধারণ জিজ্ঞাসা
  • গাছ এর পাতা কেন হলুদ হয়ে যায়?
দুটি কারণে হলুদ হতে পারে। অনেক বেশি সূর্যালোক অথবা পানি সেচের সুবিধা ভাল না হলে। তাই পট গাছ লাগানোর নাকি নিচে একটু ছিদ্র করে দিতে হবে। তারপর পাত্রে নুড়ি পাথর বিছিয়ে তার উপর মাটি ফেলতে হবে।
.

কি মনে হল, এরিকা পামের যত্ন নেওয়া কি খুব একটা কঠিন?

.

যেকোনো স্থানীয় নার্সারী থেকে এরিকা পামের চারা কিনে এখনই আপনার ঘরে বাড়তে দিন একটি। আর এর উপকারিতাও তো জানলেন। এটি শুধুমাত্র আপনার ঘরের বায়ুর বিশুদ্ধতাই নিশ্চিত করবে না, আপনার ঘরের সৌন্দর্য্য আরও কয়েকগুণে বৃদ্ধি করবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.